আজকের দিন তারিখ ২৬শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার, ১২ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সারাদেশ কালীগঞ্জে প্রধান শিক্ষককে লাঞ্ছনার ঘটনায় মামলা

কালীগঞ্জে প্রধান শিক্ষককে লাঞ্ছনার ঘটনায় মামলা


পোস্ট করেছেন: admin | প্রকাশিত হয়েছে: জুন ৪, ২০১৬ , ১০:৪৬ পূর্বাহ্ণ | বিভাগ: সারাদেশ


Lalmonirhatলালমনিরহাট: কালীগঞ্জে এক প্রধান শিক্ষককে লাঞ্ছনার ঘটনায় মামলা হয়েছে। লাঞ্ছনার শিকার ওই শিক্ষক নিজেই বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

শুক্রবার (০৩ জুন) রাতে কালীগঞ্জ থানায় মামলাটি দায়ের করেন গোড়ল ইউনিয়নের খান্ডোরচড়া বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল লতিফ।

এর আগে বৃহস্পতিবার (০২ জুন) বেলা ২টার দিকে উপজেলার গোড়ল ইউনিয়নের খান্ডোরচড়া বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে প্রকাশ্যে শিক্ষককে লাঞ্ছিত করেন আব্দুস সাত্তার নামে স্থানীয় এক মাতব্বর।

অভিযোগে জানা গেছে, ২০১৩ সালে কালীগঞ্জ উপজেলার গোড়ল ইউনিয়নের খান্ডোরচড়া বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটি নির্বাচনে প্রতিষ্ঠাতা হিসেবে বাদ পড়েন আব্দুস সাত্তার ওরফে সাত্তার কোম্পানী। এ ঘটনায় সাত্তার কোম্পানীর মদতে দাতা সদস্য বাচ্চা মিয়া বাদী হয়ে লালমনিরহাট আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। যা বিচারাধীন রয়েছে।

একই ঘটনায় সাত্তার কোম্পানী গংরা দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডে ওই প্রধান শিক্ষককের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন। যা বোর্ড কর্তৃক তদন্তের দায়িত্ব পান কালীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার প্রতিনিধি হিসেবে বৃহস্পতিবার (০২ জুন) ওই বিদ্যালয়ে তদন্তে আসেন উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার জাকির হোসেন।

সেখানেও তদন্তে প্রধান শিক্ষককে দোষী প্রমাণ করতে ব্যর্থ হওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে বিদ্যালয় মাঠে প্রধান শিক্ষকের ওপর অতর্কিত আক্রমণ করে প্রকাশ্যে চড়-থাপ্পড় মারেন আব্দুস সাত্তার ওরফে সাত্তার কোম্পানী।

এ সময় স্থানীয় লোকজন ছুটে এসে প্রধান শিক্ষককে উদ্ধার করেন প্রাথমিক চিকিৎসা দেন।

লাঞ্চনার শিকার প্রধান শিক্ষক প্রতিবন্ধী আব্দুল লতিফ জানান, তদন্তকারী কর্মকর্তা চলে যাওয়ার পর কিছু বুঝে ওঠার আগেই শিক্ষার্থী ও জনগণের সামনে বিদ্যালয় মাঠে প্রকাশ্যে তাকে বেশ কয়েকটি চড়-থাপ্পড় ও কিল-ঘুষি দিয়ে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করেন আব্দুস সাত্তার।

ওই বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি গোলজার গোসেন মিন্টু জানান, ঘটনাটি তিনি দূর থেকে দেখে স্থানীয়রাসহ ছুটে গিয়ে প্রধান শিক্ষককে রক্ষা করেন।

কালীগঞ্জ উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আফরোজা বেগম জানান, এ ঘটনায় প্রধান শিক্ষককে আইনি সহায়তা নিতে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

কালীগঞ্জ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিয়ার রহমান জানান, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।