আজকের দিন তারিখ ২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, ১২ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
অর্থ ও বাণিজ্য ৬ কোম্পানির সিংহভাগ শেয়ার উদ্যোক্তাদের কব্জায়

৬ কোম্পানির সিংহভাগ শেয়ার উদ্যোক্তাদের কব্জায়


পোস্ট করেছেন: Dinersheshey | প্রকাশিত হয়েছে: জুলাই ২৪, ২০২১ , ১২:৩৯ অপরাহ্ণ | বিভাগ: অর্থ ও বাণিজ্য


দিনের শেষে প্রতিবেদক : উদ্যোক্তা পরিচালকদের কব্জায় রয়েছে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ৬ কোম্পানির ৯০ শতাংশের বেশি শেয়ার। কোম্পানিগুলো হলো- বার্জার পেইন্টস বাংলাদেশ, গ্রামীণফোন, ম্যারিকো বাংলাদেশ, রবি আজিয়েটা, ইউনাইটেড পাওয়ার ও ওয়ালটন হাইটেক।
জানা যায়, সবচেয়ে বেশি শেয়ার উদ্যোক্তাদের কব্জায় রয়েছে ওয়ালটন হাইটেকের। কোম্পানিটির ৩০ কোটি ২৯ লাখ ২৮ হাজার ৩৪৩টি শেয়ারের মধ্যে ৯৯.০৩ শতাংশ উদ্যোক্তা পরিচালকের কাছে রয়েছে। বাকি ০.৯৭ শতাংশ শেয়ারের মধ্যে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ০.৩৭ শতাংশ, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের কাছে ০.১০ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ০.৫০ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। কোম্পানিটির বর্তমান শেয়ার দর এক হাজার ৪৩৫ টাকা ৪০ পয়সা। ৩১ মার্চ ২০২১ পর্যন্ত তৃতীয় প্রান্তিকের অনিরিক্ষীত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী, কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় ও সম্পদমূল্য যথাক্রমে- ১২ টাকা ৭৯ পয়সা এবং ২৯১ টাকা ৫৯ পয়সা। কোম্পানিটির বর্তমানে পিই রেশিও ৩১.৫৩ পয়েন্ট।
বার্জার পেইন্টস লিমিটেড : কোম্পানিটির ৪ কোটি ৬৩ লাখ ৭৭ হাজার ৮৮০টি শেয়ারের মধ্যে ৯৫ শতাংশ উদ্যোক্তা পরিচালকের কাছে রয়েছে। বাকি ৫ শতাংশ শেয়ারের মধ্যে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ৩.৪২ শতাংশ, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের কাছে ০.১৪ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ১.৪৪ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। কোম্পানিটির বর্তমান শেয়ার দর ১ হাজার ৮৭৪ টাকা ৩০ পয়সা। কোম্পানিটি ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ অর্থবছরের জন্য ৩৭৫ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। আলোচ্য অর্থবছরে শেয়ারপ্রতি আয় ও সম্পদমূল্য যথাক্রমে- ৫৮ টাকা ০৩ পয়সা এবং ২৩২ টাকা ৭৮ পয়সা। কোম্পানিটির নিরীক্ষিত পিই রেশিও হবে ৩২.২৯ পয়েন্ট।
গ্রামীণফোন লিমিটেড : কোম্পানিটির ১৩৫ কোটি ৩ লাখ ২২টি শেয়ারের মধ্যে ৯০ শতাংশ উদ্যোক্তা পরিচালকের কাছে রয়েছে। বাকি ১০ শতাংশ শেয়ারের মধ্যে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ৪.৬৬ শতাংশ, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের কাছে ৩.১৮ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ২.১৮ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। কোম্পানিটির বর্তমান শেয়ার দর ৩৬৫ টাকা ৭০ পয়সা। চলতি অর্থবছরের দুই প্রান্তিকে (জানুয়ারি-জুন’২১) কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় ও সম্পদমূল্য হয়েছে যথাক্রমে- ১২ টাকা ৮৯ পয়সা এবং ৩৬ টাকা ৯৮ পয়সা। কোম্পানিটির বর্তমানে পিই রেশিও ১৩.৮৫ পয়েন্ট।
ম্যারিকো বাংলাদেশ লিমিটেড : কোম্পানিটির ৩ কোটি ১৫ লাখ শেয়ারের মধ্যে ৯০ শতাংশ উদ্যোক্তা পরিচালক এবং ২ শতাংশ শেয়ার সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে রয়েছে। কোম্পানিটির বর্তমান শেয়ার দর ২ হাজার ৩৯১ টাকা ৯০ পয়সা। কোম্পানিটি ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ অর্থবছরের জন্য ২০০ শতাংশ চুড়ান্ত ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। এর আগে কোম্পানিটি ৭০০ শতাংশ অন্তবর্তী ডিভিডেন্ড দিয়েছিল। আলোচ্য অর্থবছরে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় ও সম্পদমূল্য যথাক্রমে- ৯৮ টাকা ৬৯ পয়সা এবং ৫১ টাকা ৬৫ পয়সা। কোম্পানিটির নিরীক্ষিত পিই রেশিও হবে ২৪.২৩ পয়েন্ট।
রবি আজিয়েটা লিমিটেড : কোম্পানিটির ৫২৩ কোটি ৭৯ লাখ ৩২ হাজার ৮৯৫টি শেয়ারের মধ্যে ৯০.০৫ শতাংশ উদ্যোক্তা পরিচালকদের কাছে রয়েছে। বাকি ৯.৯৫ শতাংশ শেয়ারের মধ্যে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ২.০৫ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ৭.৯০ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। কোম্পানিটির বর্তমান শেয়ার দর ৪৪ টাকা ৯০ পয়সা। ৩১ মার্চ ২০২১ পর্যন্ত প্রথম প্রান্তিকের অনিরিক্ষীত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় ও সম্পদমূল্য যথাক্রমে- ৭ পয়সা এবং ১২ টাকা ৬৬ পয়সা। কোম্পানিটির বর্তমানে পিই রেশিও ১৬০.৩৬ পয়েন্ট।
ইউনাইটেড পাওয়ার লিমিটেড : কোম্পানিটির ৫৭ কোটি ৯৬ লাখ ৯৫ হাজার ২৭০টি শেয়ারের মধ্যে ৯০ শতাংশ উদ্যোক্তা পরিচালকদের কাছে রয়েছে। বাকি ১০ শতাংশ শেয়ারের মধ্যে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ৭.২৪ শতাংশ, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের কাছে ০.০৪ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ৭.২.৭২ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। কোম্পানিটির বর্তমান শেয়ার দর ২৮১ টাকা ২০ পয়সা। ৩১ মার্চ ২০২১ পর্যন্ত তৃতীয় প্রান্তিকের অনিরিক্ষীত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় ও সম্পদমূল্য যথাক্রমে- ৫ টাকা ৩৩ পয়সা এবং ৫২ টাকা ২০ পয়সা। কোম্পানিটির বর্তমানে পিই রেশিও ১৪.২২ পয়েন্ট।