আজকের দিন তারিখ ৬ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার, ২১শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
জাতীয় নিষেধাজ্ঞা নিয়ে এখনও সুনির্দিষ্ট তথ্য দেয়নি যুক্তরাষ্ট্র: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিষেধাজ্ঞা নিয়ে এখনও সুনির্দিষ্ট তথ্য দেয়নি যুক্তরাষ্ট্র: পররাষ্ট্রমন্ত্রী


পোস্ট করেছেন: dinersheshey | প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ২১, ২০২২ , ৫:০৩ অপরাহ্ণ | বিভাগ: জাতীয়


দিনের শেষে ডেস্ক :  র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) সাবেক ও বর্তমান কয়েকজন কর্মকর্তার ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্র সুনির্দিষ্ট কোনো তথ্য দেয়নি বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। নিউ ইয়র্ক সময় মঙ্গলবার সন্ধ্যায় হোটেল লোটেতে এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যে ছয়জনের বিরুদ্ধে আমেরিকান সরকার নিষেধাজ্ঞাদিয়েছে, আমরা কারণ জানতে চাই। ওরা আমাদের কোনো সঠিক, সুনির্দিষ্ট তথ্য দেয়নি এখনও।

গুরুতর মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগে গত বছরের ১০ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবসে র‍্যাবের বর্তমান ও সাবেক ৬ কর্মকর্তার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের কথা জানায় যুক্তরাষ্ট্র। দেশটির পররাষ্ট্র বিভাগ ও রাজস্ব বিভাগ আলাদা করে এ নিষেধাজ্ঞা দেয়।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যে ছয়জনের বিরুদ্ধে আমেরিকান সরকার…দিয়েছে, আমরা কারণ জানতে চাই। ওরা আমাদের কোনো সঠিক, সুনির্দিষ্ট তথ্য দেয়নি এখনও। সুতরাং আমরা জানি না। আর আমেরিকার একটা অভ্যাসও আছে বিভিন্ন দেশে স্যাংশন (নিষেধাজ্ঞা) দিয়ে থাকে। এটা তাদের ব্যাপার।

সন্ত্রাস দমনে র‌্যাবের ভূমিকার প্রশংসা করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এই র‌্যাব প্রতিষ্ঠার ফলে আপনার যে কাজটা হয়েছে, ইদানীং আমাদের দেশে সন্ত্রাসী নাই। লাস্ট সন্ত্রাসী ছিল হলি আর্টিজান। দ্যাট ওয়াজ লাস্ট ওয়ান।

আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর তৎপরতার কারণেই দেশে উন্নয়ন হচ্ছে দাবি করে মোমেন বলেন, স্কুল-কলেজের সেশন অন টাইমে হচ্ছে, কোনো ঝামেলা নাই। ব্যবসায়ী নিশ্চিন্তে ব্যবসা করতেছে; অভিভাবকরা খুশি। স্কুলে বাচ্চা গেলে ফিরে আসছে ঠিক টাইমলি। কোনো সন্ত্রাসীর ভয় নাই। শুধু আমাদের দেশে না, প্রতিবেশী রাষ্ট্রও খুশি। সন্ত্রাসীর আতঙ্ক না থাকার কারণ মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জিরো টলারেন্স টু টেরোরিজম।

আব্দুল মোমেন বলেন, কিছু কিছু দুষ্টু লোক, তারা মনে করে এই র‌্যাবের কারণে এবং সরকারের বিশেষ অবস্থানের কারণে সন্ত্রাসী হচ্ছে না, ঝামেলা করতে পারতেছে না, বিভিন্ন রকম প্রচারণা করেছে। যারা এদের ওপরে স্যাংশন দিয়েছেন, এটা উইথড্র করার দায়দায়িত্ব তাদের। আর তারা (যুক্তরাষ্ট্র) আমাদের বলেন নাই কেন দিয়েছেন।

মন্ত্রী জানান, সুনির্দিষ্ট তথ্য দিয়ে যুক্তরাষ্ট্র জানাতে পারত যে, এ কারণে নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়েছে। দেশটি সেটি করেনি জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, এখন পর্যন্ত আমাদের সেই তথ্য দেয়া হয়নি। আমরা এখানে আমাদের কথা বলেছি এবং তারা শুনেছেন। আমি আশা করি…আপনি এটা জানেন, আমেরিকা বহু দেশে শত শত স্যাংশন দিয়ে রেখেছে।