আজকের দিন তারিখ ২১শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার, ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রাজনীতি গ্যাসের দাম বৃদ্ধির প্রস্তাবে হুঁশিয়ারি মোশাররফের

গ্যাসের দাম বৃদ্ধির প্রস্তাবে হুঁশিয়ারি মোশাররফের


পোস্ট করেছেন: dinersheshey | প্রকাশিত হয়েছে: জানুয়ারি ২১, ২০২২ , ৩:০৪ অপরাহ্ণ | বিভাগ: রাজনীতি


দিনের শেষে ডেস্ক :  গ্যাসের দাম আর বৃদ্ধি করা যাবে না বলে সরকারের প্রতি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন। শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ও উত্তর বিএনপির যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি। শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৮৬তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির প্রস্তাবের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমরা এই সভা শেষে এর তীব্র বিরোধিতা করি। এই সরকার কোন ধরনের সরকার না। তাদের কোন মান্ডেট নেই। ইতিপূর্বেও তেল ও বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি করেছে। জনগণের পকেট থেকে টাকা নিয়ে বিদেশে পাচার করছে। আর নয়। এই গ্যাসের দাম আর বৃদ্ধি করা যাবে না।

জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশন থেকে র‍্যাবকে বাদ দেয়ার আহ্বান জানিয়ে ১২টি মানবাধিকার সংস্থা জাতিসংঘের কাছে চিঠি দিয়েছে উল্লেখ করে খন্দকার মোশাররফ বলেন, এটা কি আমাদের গর্বের? এটা অবশ্যই আমাদের লজ্জার ব্যাপার। এই লজ্জা এবং আন্তর্জাতিকভাবে আজকে আমাদের এই হেয়প্রতিপন্ন করছে কারা? আজকের সরকার। কেনো? গায়ের জোরে ক্ষমতায় থাকার জন্য।

নেতাকর্মীদেরকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ গণতন্ত্র ফিরিয়ে দেবে না। বিএনপিকেই দায়িত্ব নিতে হবে। আর আমরা যদি গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে না পারি তাহলে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকেও পূর্ণ মুক্ত করতে পারবো না। আমেরিকার গণতন্ত্র সম্মেলনে বাংলাদেশ দাওয়াত পায়নি উল্লেখ করে বিএনপির এই স্থায়ী কমিটির সদস্য বলেন, আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত যে বাংলাদেশে গণতন্ত্র নাই। মানবাধিকারও নাই। আর যে দেশে গণতন্ত্র নাই সে দেশে মানবাধিকার থাকতেও পারে না। মানবাধিকার লঙ্ঘিত এখানে।

ঢাকা মহানগন দক্ষিণ বিএনপির আহ্বায়ক আবদুস সালামের সভাপতিত্বে এবং উত্তরের সদস্য সচিব আমিনুল হক ও দক্ষিণের সদস্য সচিব রফিকুল আলম মজনুর সঞ্চালনায় সভায় উত্তর বিএনপির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমান, কেন্দ্রীয় বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য নাজিম উদ্দিন আলম, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।