আজকের দিন তারিখ ১৪ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, ৩১শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বিনোদন করোনায় আক্রান্ত হিনা খান

করোনায় আক্রান্ত হিনা খান


পোস্ট করেছেন: Dinersheshey | প্রকাশিত হয়েছে: এপ্রিল ২৭, ২০২১ , ২:৪৯ অপরাহ্ণ | বিভাগ: বিনোদন


দিনের শেষে ডেস্ক : কঠিন সময় পার করছেন ভারতের অন্যতম শীর্ষ টিভি তারকা হিনা খান। এক সপ্তাহ আগে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান তার বাবা আসলাম খান। ফের দুঃসংবাদ দিলেন। এবার করোনায় আক্রান্ত হিনা।
সামাজিক পাতায় করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবর জানিয়েছেন হিনা খান নিজেই। লিখেছেন, তার ও পরিবারের কঠিন দুঃসময়ের মধ্যেই করোনার নমুনা পরীক্ষার ফল পজিটিভ এলো। সেইসঙ্গে লিখেছেন, চিকিৎসকের নির্দেশনা অনুযায়ী তিনি এখন নিভৃতবাসে রয়েছেন এবং প্রয়োজনীয় সব পদক্ষেপ অনুসরণ করছেন। অভিনেত্রী এ-ও অনুরোধ করেছেন, যারা সম্প্রতি তার সংস্পর্শে এসেছিলেন, তারাও যেন কোভিড পরীক্ষা করান। ভক্তদের কাছে দোয়া চান হিনা খান। ভারতের বিনোদনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বলিউড বাবলের খবর, সত্যিই কঠিন সময় পার করছেন হিনা খান। ২০ এপ্রিল হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান ‘ইয়ে রিশতা কেয়া কেহলাতা হ্যায়’খ্যাত হিনা খানের বাবা আসলাম খান। মৃত্যুর সময় বাবার কাছে ছিলেন না হিনা খান। কাশ্মীরে অভিনেতা শাহির শেখের সঙ্গে গানের ভিডিওর শুটিংয়ে ব্যস্ত ছিলেন। খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে কাশ্মীর থেকে মুম্বাই উড়ে যান তিনি। শোকে মুহ্যমান হিনার পুরো পরিবার। এক সাক্ষাৎকারে হিনা খান বলেছিলেন, অভিনয়ে নিজের স্বপ্ন পূরণ করার উদ্দেশে তিনি মুম্বাই গিয়েছিলেন আর সে কথা একমাত্র জানতেন তার বাবা। বাবা ছাড়া তার জীবনের পুরো সত্যটা আর কেউ জানেন না, এমনকি মা-ও নন। ইনস্টাগ্রামে হিনা খান তার বাবার ‌ছবি ও ভিডিও দিতেন মাঝেমধ্যে। গত বছর লকডাউনের সময় পরিবারের সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলো তুলে ধরতেন অন্তর্জালে।
বৈশ্বিক করোনা পরিস্থিতিতে ভারত বর্তমানে খুবই নাজুক অবস্থানে। রাজধানী দিল্লির করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। মহারাষ্ট্রে করোনা পরিস্থিতি তো আরও ভয়াবহ। গতকাল খবর আসে, চিত্রনায়িকা পূজা হেজ করোনায় আক্রান্ত। এবার সেই তালিকায় হিনা খানের নাম যোগ হলো। সম্প্রতি অর্জুন রামপাল, সোনু সুদ, পবন কল্যাণ, পরেশ রাওয়াল, রণবীর কাপুর, আলিয়া ভাট, ভূমি পেড়নেকার, ভিকি কুশল, কার্তিক আরিয়ান, আমির খান, মিলিন্দ সোমান, গোবিন্দের মতো তারকারা কোভিড-১৯-এ আক্রান্ত হন। অবশ্য পরে তাঁরা করোনামুক্ত হন।